শনিবার ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৭ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
◈ স্থানীয় সরকার নির্বাচনে শিক্ষিত ও ভালো মানুষ বাড়াতে হবে ◈ শারদীয় দূর্গা পূজা উপলক্ষ্যে বাহাদুরপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমানের অর্থায়নে ২ শতাধীক পরিবারের বস্ত্র বিতরণ ◈ আখাউড়ায় বিশেষ অভিযানে সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামিসহ আটক ১০ ◈ গাজীপুর মহানগর চাপুলিয়া মফিজ উদ্দিন খান উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচনে মোহাম্মদ নূরুল হক খান প্যানেল বিজয় ◈ বরুড়ায় ক্ষুদে কবি সবুজের উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন ◈ টঙ্গিবাড়িতে কারিগরি শিক্ষা বিষয়ক উদ্বুদ্ধকরণ সভা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত ◈ তাহিরপুর পাটলাই নদীর তীরে মজুদ করা দুই মেট্রিকটন অবৈধ কয়লা জব্দ করেছে বিজিবি ◈ রাঙ্গুনিয়ায় একাধিক মামলায় জড়িত কালা বাচা আটক ◈ মোহনপুরে শারদীয় দূর্গা পূজা উপলক্ষে বস্ত্র বিতরণ করলেন এম.পি আয়েন উদ্দিন ◈ চকরিয়া পৌরশহরের পেঁয়াজের দোকানে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান

কোনটা খাবেন সাদা নাকি বাদামি চালের ভাত

প্রকাশিত : ০৬:৩৯ পূর্বাহ্ণ, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ রবিবার ১২২ বার পঠিত

অনলাইন নিউজ ডেক্স :
alokitosakal

বাঙালির সবচেয়ে প্রিয় খাবারের তালিকায় রয়েছে ভাত।পছন্দের তরকারির সাথে এক প্লেট ভাত নিমিষেই শেষ করতে আমাদের জুড়ি নেই।আমরা,যতই পাশ্চাত্য খাবারে অভ্যস্ত হয়ে উঠি না কেন ভাতের প্রতি আমাদের ভালবাসা কমবার নয়।এজন্য বোধ হয় প্রবাসে যাওয়া মানুষ গুলো নিয়মিত ভাত খেতে না পারার কষ্টে সবচেয়ে ব্যথিত হন।
আর সুস্থ থাকতে ব্যক্তির শারীরিক অবস্থার ধরণ বুঝে আমাদের ৪৫-৬৫% পর্যন্ত শর্করা জাতীয় খাবার গ্রহণ করার পরামর্শ দেয়া হয়।

আর,শর্করার চাহিদা পূরণের জন্য আমরা ভাতের উপর সবচেয়ে বেশি নির্ভরশীল।আমরা নানা রকম চালের ভাত খেয়ে থাকি।তবে,আমাদের পছন্দের মধ্যে রয়েছে চকচকে সাদা চালের ভাত।লাল বা বাদামি চালের প্রতি আমাদের আগ্রহ একেবারে কম।তবে,স্বাস্থ্যের কথা বিবেচনায় আমাদের কোন ধরণের চাল বেছে নেয়া উচিত সে বিষয়ে আজ থাকবে কিছু পরামর্শ। জানতে পারবেন কোন চালের ভাত আমাদের জন্য বেশি স্বাস্থ্যসম্মত?

সাদা ভাতের নানা দিক

• সাদা ভাত মানেই হল নানা ভাবে প্রসেস করা চাল।ফলে,জরুরী পুষ্টি উপাদান গুলো অতিরিক্ত প্রসেস করার কারণে অনুপস্থিত থাকে।বলা যায়,সাদা চাল মানে হল জিরো ভিটামিন এবং মিনারেলস।
• সাদা ভাতের গ্লাইসেমিক ইনডেক্স এবং ক্যালরি উভয়ই বেশি।ফলে,যারা,ডায়াবেটিস,ওবেসিটি,উচ্চরক্তচাপে ভুগছেন এবং যারা ফিট থাকতে চান তাদের জন্য সাদা চালের ভাত একেবারে উপযুক্ত নয়।
• প্রয়োজনীয় অনেক ভিটামিন এবং মিনারেলসের ঘাটতি থাকে।ফলে,যারা ভাবছেন অপুষ্টটিতে আক্রান্ত ব্যক্তি বেশি বেশি ভাত খেলে দ্রুত সুস্থ হয়ে যাবে।তাদের জন্য এটি একেবারে ভুল ধারণা।
• সাদা ভাতে ফাইবার বা খাদ্য আঁশ নেই বললেই চলে।সুস্থ থাকার জন্য আমাদের নূন্যতম ২৫-৩০ গ্রাম ফাইবার জাতীয় খাবার গ্রহণ করা উচিত।তবে,সাদা ভাতএই চাহিদা পূরনের ক্ষেত্রে কোন কাজে আসবে না।
• সাদা ভাত রক্তের শর্করা দ্রুত বাড়িয়ে দেয়।ফলে,ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য সাদা চালের ভাত এড়িয়ে যাবার পরামর্শ দেয়া হয়।
• সাদা ভাতের ক্যালরি অনেক বেশি তাই নিয়মিত বেশি পরিমাণে সাদা ভাত খেলে দ্রুত ওজন বেড়ে যাবার সম্ভাবনা থাকে।
• বিভিন্ন গবেষণায় দেখা,গিয়েছে যারা নিয়মিত সাদা চালের ভাত খান তাদের পরবর্তিতে টাইপ-২ ডায়াবেটিস হবার সম্ভাবনা অনেক বেশি থাকে।

বাদামি ভাতের নানা দিক

• বাদামি চালের ভাতে জরুরি সব পুষ্টি উপাদান বজায় থাকে।বাদামি চাল হল হোলগ্রেন।তাই,এই চালের ভাতে ফাইবার, নিয়াসিন,ফোলেট,সেলেনিয়াম,ম্যাগনেসিয়াম,ফসফরাস সহ অন্যান্য পুষ্টি উপাদান থাকে একেবারে অটুট।
• বাদামি চালে থাকা বি-ভিটামিন ভাল ঘুমের সহায়ক।এছাড়া,বি ভিটামিন আমাদের নার্ভাস সিস্টেমকে সঠিক ভাবে কাজ করতে সাহায্য করে।
• বাদামি চালের গ্লাইসেমিক ইন্ডেক্স কম।ফলে,বাদামি চালের ভাত খেলে দ্রুত রক্তের শর্করা বেড়ে যাবার সম্ভাবনা থাকেনা।সুতরাং,ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য বাদামি চালের ভাত নিরাপদ।
• বাদামি চালে থাকা ফোলেট ভ্রুনের ‘বার্থ ডিফেক্টস’ দূর করতে সাহায্য করে।সুতরাং,যেসব মায়েরা গর্ভধারণ করেছেন তাদের উচিত শর্করার চাহিদা পূরনের জন্য বাদামি চালের ভাত বেছে নেয়া।
• বাদামি চালে সেলেনিয়াম থাকে যা থাইরয়েড ফাংশন ঠিক রাখার জন্য জরুরী একটি উপাদান।সুতারং,যারা নিয়মিতবাদামি চালের ভাত খেয়ে থাকেন তাদের থাইরয়েডের রোগ কম হয়।
• অঙ্কুরিত বাদামি চালে অ্যান্টি ডিপ্রেসেন্ট প্রোপার্টিস রয়েছে যা হতাশা এবং উদ্বেক জনিত সমস্যা কমাতে সাহায্য করে।
• বাদামি চালে প্রাকৃতিক ভাবেই মেলাটোনিন নামক উপাদান থাকে যা ভাল ঘুমের সহায়ক হিসাবে কাজ করে।এই উপাদানটি আমাদের স্নায়ুতন্ত্রকে শীথিল করার মাধ্যমে ঘুমের সাইকেল বৃদ্ধি করে ঘুমের গুনগত মান বাড়ায়।
• বাদামি চালে কেমোপ্রিভেন্টিভ প্রোপার্টিস রয়েছে।বাদামি চালের ব্রানে থাকা অত্যাবশ্যকীয় ফেনলিক উপাদান ট্রাইসিন,ফেরুলিক এসিড এবং ক্যাফিক এসিড ব্রেস্ট ক্যান্সার এবং কোলন ক্যান্সারের বিস্তারকে প্রতিরোধ করে।
• বাদামি চালে থাকা ফাইবার বা খাদ্যআঁশ দেহের কোলেস্টেরল কমাতে সাহায্য করে।
• যারা,ফিট এবং ওজন কমাতে গিয়ে ভাবছেন ভাত খাওয়া একেবারে বাদ দেবেন তাদের বলছি চাল বদলে ফেলুন।সাদা চালের পরিবর্তে লাল চালের ভাত গ্রহণ করুন।
সুতরাং,বুঝতেই পারছেন নিজের ভালোর জন্য আপনাকে অবশ্যয় লাল চালের ভাত বেছে নিতে হবে।যদি ভাত খেয়েও সুস্থ থাকতে চান তবে আজই সাদা ভাতের পরিবর্তে লাল চালের ভাত খাওয়া শুরু করুন।সুস্থ থাকার ইচ্ছেটা আসলে নিজের ইচ্ছার উপর নির্ভর করে।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি radio-lalon'কে জানাতে ই-মেইল করুন- @gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

radio-lalon'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। radio-lalon | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT